লোহাগড়ায় ছাত্রলীগ নেতা খুন, বিচারের দাবিতে বিক্ষোভ : আটক ৫

0 ৪৪

লোহাগড়া প্রতিনিধি

নড়াইলের লোহাগড়া উপজেলার দিঘলিয়া ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক শেখ জহিরুল ইসলাম রেজোয়ানকে (২৮) কুপিয়ে হত্যার প্রতিবাদ ও খুনিদের আটকের দাবিতে ছাত্রলীগ শনিবার দুপুরে দিঘলিয়া বাজারে বিক্ষোভ মিছিল করে। পুলিশ ঘটনার সাথে জড়িত থাকার সন্দেহে ৫ জনকে আটক করেছে।
শুক্রবার রাত ৮টার দিকে দিঘলিয়া বাজারের চৌরাস্তায় এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। নিহত শেখ জহিরুল ইসলাম রেজোয়ান উপজেলার কুমড়ি গ্রামের মৃত সাইফুল শেখের ছেলে।
পুলিশ, পরিবার ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, এলাকার আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে উপজেলার কুমড়ি গ্রামের সাইফুল শেখের ছেলে দিঘলিয়া ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক শেখ জহিরুল ইসলাম রেজোয়ানের সাথে একই গ্রামের বদিয়ার খানের ছেলে সোহেল খানের মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে বিরোধ চলে আসছিল। ঘটনার সময় রেজোয়ান দিঘলিয়া বাজারের চৌরাস্তা এলাকায় মুকুলের চায়ের দোকান থেকে বের হয়ে ঝড়– ফকিরের বাড়ির সামনে পৌঁছালে প্রতিপক্ষ সোহেল খানসহ ৭/৮ জন দুর্বৃত্ত মোটরসাইকেলে এসে তাকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে হাত ও পাসহ শরীরের বিভিন্ন অংশে এলোপাথাড়িভাবে কুপিয়ে গুরুতর জখম করে পালিয়ে যায়। এলাকাবাসী তাকে উদ্ধার করে প্রথমে লোহাগড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আনেন। কর্তব্যরত ডাক্তার তাকে তখনই নড়াইল সদর হাসপাতালে প্রেরণ করেন। রাত ৯টার দিকে সদর হাসপাতালে জরুরি বিভাগের কর্তব্যরত ডাক্তার বিভাষ শর্মা তাকে মৃত ঘোষণা করেন। শনিবার নিহতের লাশের ময়না তদন্ত শেষে আছর বাদ দিঘলিয়া উচ্চ বিদ্যালয়ের মাঠে জানাজা শেষে পারিবারিক কবরস্থানে তাকে দাফন করা হয়েছে।
রেজোয়ানের ভাই রানা শেখ জানান, সোহেল খানসহ ৭/৮ জন দুর্বৃত্ত আমার ভাইকে কুপিয়ে হত্যা করেছে। আমি ভাই হত্যার বিচার চাই।
এদিকে রেজোয়ান হত্যার প্রতিবাদ ও খনিদের আটকের দাবিতে দিঘলিয়া ইউনিয়ন ছাত্রলীগের উদ্যোগে শনিবার দুপুরে দিঘলিয়া বাজারে বিক্ষোভ মিছিল বের হয়। মিছিলটি বাজারের বিভিন্ন এলাকা প্রদক্ষিণ শেষে এক সমাবেশে বক্তব দেন, ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি শেখ আব্দুর রহিম সুজন, ছাত্রলীগ নেতা তাজমুল ইসলাম, হোসেন শেখ, শৈখ শাহিন প্রমুখ।
লোহাগড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সৈয়দ আশিকুর রহমান বলেন, ঘটনার সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে ৫ জনকে আটক করা হয়েছে। ওই এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে । অভিযুক্ত সোহেল খান জেলা গোয়েন্দা শাখার তালিকাভুক্ত সন্ত্রাসী । তার নামে লোহাগড়া থানায় হত্যাসহ একাধিক মামলা রয়েছে।

মন্তব্য
Loading...