বেনাপোল সীমান্তে মাদক ব্যবসায়ীর গুলিবিদ্ধ লাশ

৩১৩

বেনাপোল প্রতিনিধি

বেনাপোল পোর্ট থানার বাহাদুরপুর সীমান্ত থেকে মোহাম্মদ রিয়া নামে এক মাদক ব্যবসায়ীর গুলিবিদ্ধ লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। এ সময় লাশের পাশ থেকে প্রায় ৬-৭ কেজির মতো এক টুপলা গাঁজাও উদ্ধার করা হয়। বিজিবির টুআইসি মেজর নজরুল ইসলাম ও বেনাপোল পোর্ট থানার ওসি মামুন খান ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।
শুক্রবার সকাল ১০টার সময় লাশটি উদ্ধার করা হয়। রিয়া বেনাপোল পোর্ট থানার বাহাদুরপুর গ্রামের কাঠু মোড়লের ছেলে।
বিজিবি জানায়, রাত সাড়ে তিনটার সময় বিএসএফ রিয়াকে গুলি করে হত্যা করে। টহল পার্টি গুলির শব্দে বাহাদুরপুর সীমান্তের ২৬-থ্রি-টি-মেইন পিলার থেকে ১৪০ গজ দূরে যেয়ে দেখে গলায় গুলিবিদ্ধ এক যুবকের লাশ পড়ে রয়েছে।
স্থানীয় শাহরিয়ার হোসেন প্রান্ত বলেন, রিয়া একজন মাদক ব্যবসায়ী। তার নামে এর আগে থানায় কমপক্ষে দুই তিনটা মাদক মামলা রয়েছে। রিয়ার বাবা কাঠু মোড়ল বলেন, আমরা তাকে অনেকবার নিষেধ করেছি; সে নিষেধ শোনে না। সে গাঁজার মহাজনের একজন বহনকারী হিসেবে যায়। গাঁজার মহাজন কে জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমি জানি না।
ধান্যখোলা ক্যাম্পের সুবেদার ছরোয়ারের নিকট বিষয়টি জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমার কিছু বলার নেই। যা শোনার তা টুআইসি স্যারের কাছে শোনেন। আপনি এ ক্যাম্পের দায়িত্বে আছেন বলতে পারবেন না, আবার আপনার এলাকায় ঘটনা ঘটেছে যশোর থেকে টুআইসি কিভাবে বলবে এ প্রশ্নে তিনি বলেন, আমার নিষেধ আছে আমি কিছু বলতে পারব না।
ধান্যখোলা সীমান্তে লাশ দেখতে আসা জনগণ বলেন, মাঠের মধ্যে একেবারে ভারতের কাঁটাতারের বেড়া পর্যন্ত রাতে বিজিবি টহল দেয়। কিভাবে সেই পথে গাঁজা আসে। নিশ্চয় বিজিবির সহযোগিতা ছাড়া চোরাকারবারি সম্ভব না। তবে স্থানীয়রা বিজিবির ভয়ে তাদের নাম প্রকাশ করতে ভয় পেয়ে বলেন, নাম প্রকাশ করলে রাতে বিজিবি আমাদের ধরে নিয়ে ফেনসিডিল দিয়ে চালান দিবে।
ঘটনাস্থলে লাশের ও মাদকদ্রব্যের ছবি তুলতে গেলে বিজিবি বার বার বাধা দেয়। এই বাধার কারণে নাম প্রকাশ না করার শর্তে ওই এলাকার কয়েকজন যুবক বলেন, রিয়া গাঁজা আনাতে যায় বিজিবির সাথে চুক্তিতে।
৪৯ বিজিবি টুআইসি বলেন, কিছু জানতে চাইলে আপনারা সিও স্যারের সাথে কথা বলেন। আমি কিছু বলতে পারব না।
বেনাপোল পোর্ট থানার এসআই মাসুম বলেন, লাশের পাশে যখন গাঁজা পাওয়া গেছে তখন সে একজন মাদক ব্যবসায়ী হিসেবে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে। লাশ উদ্ধার করে যশোর মর্গে ময়নাতদন্তর জন্য পাঠানো হয়েছে।
এ ঘটনায় রিয়ার বাড়ি যেয়ে দেখা যায় রিয়ার মা-বাবা, আত্মীয়-স্বজনের কান্নায় আকাশবাতাস ভারী হয়ে উঠেছে।

মন্তব্য
Loading...