মণিরামপুরে মাদকসেবীদের হামলায় আহত ৪

১৫১

মণিরামপুর প্রতিনিধি : যশোরের মণিরামপুরে গাঁজা সেবনে বাধা দেয়ায় মাদকসেবীদের হামলায় চার যুবক আহত হয়েছেন। আহতদের উদ্ধারের পর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। আর এ ঘটনা ঘটেছে সোমবার রাত নয়টায় দিকে উপজেলার দোনার গ্রামে। এ ব্যাপারে হামলাকারীদের নাম উল্লেখসহ থানায় লিখিত অভিযোগ করা হয়েছে। তবে পুলিশ কাউকে আটক করতে পারেনি।
জানা যায়, উপজেলার ভোজগাতী ইউনিয়নের দোনার গ্রামের মোশাররফ হোসেনের ছেলে মারুফ হোসেন এবং আব্বাস আলী মোড়লের ছেলে তারেক সোমবার রাত নয়টার দিকে আবদুল লতিফের মেহগনি বাগানে গাঁজা সেবন করছিল। বিষয়টি টের পেয়ে জাকির হোসেনের ছেলে তুষার তাদেরকে গাঁজা সেবনে বাধা দেয়। অভিযোগ রয়েছে, এ সময় ক্ষিপ্ত হয়ে মাদকসেবী মারুফ এবং তারেক মারপিটের পর তুষারের কাছ থেকে তার মোবাইল ফোনটি কেড়ে নেয়। তাদের মারপিটে তুষারের মাথা ফেটে যায়। মুহূর্তের মধ্যে এ খবর জানাজানি হলে এলাকার বেশ কয়েকজন যুবক সেখানে গিয়ে প্রতিবাদ করে। কিন্তু এলাকাবাসীর অভিযোগ, এ সময় মাদকসেবী মারুফ এবং তারেকের নেতৃত্বে ৬-৭ জন সন্ত্রাসীরা লাঠিসোটা ও ধারালো দা নিয়ে তাদের ওপর হামলা চালিয়ে বেধড়ক মারপিট করে। এতে চারজন আহত হয়। এর মধ্যে তুষারের মাথা ফেটে যায়। পরে স্থানীয়রা উদ্ধারের পর হানেফ আলী সরদারের দুই ছেলে ইকবাল হোসেন ও পারভেজ, মৃত ইউনুচ আলী দফাদারের ছেলে হাফিজুর রহমান ও জাকির হোসেনের ছেলে তুষারকে ওই রাতেই উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে।
ভোজগাতী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক আবদুর রাজ্জাক জানান, গাঁজা সেবনে বাধা দেয়ায় সন্ত্রাসীরা হামলা চালিয়ে তাদেরকে আহত করে। এ ঘটনায় মাদকসেবী মারুফ এবং তারেকসহ কয়েকজনের বিরুদ্ধে থানায় লিখিত অভিযোগ করা হয়। লিখিত অভিযোগের সত্যতা স্বীকার করে ওসি (তদন্ত) শিকদার মতিয়ার রহমান জানান, বিষয়টি তদন্তের জন্য একজন আসআইকে দায়িত্ব দেয়া হয়েছে।

প্রবীর/প্রণব/তুহিন

মন্তব্য
Loading...